শিক্ষক আবুল খায়েরের অপকর্ম ফাঁস করলেন এক শিক্ষার্থী

শিক্ষক আবুল খায়েরের অপকর্ম ফাঁস করলেন এক শিক্ষার্থী

দেশ ডেস্ক :
কৌশলে একাধিক ছাত্রীকে ধর্ষণের অভিযোগে নারায়ণগঞ্জের ফতুল্লার কাশীপুর হাটখোলা উচ্চ বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক আবুল খায়েরকে বরখাস্ত করা হয়েছে। অভিযোগের সত্যতা পাওয়ার পর বৃহস্পতিবার (০৩মে) জরুরি সভা ডেকে স্কুল কর্তৃপক্ষ তার বিরুদ্ধে এ ব্যবস্থা নিয়েছে। এর আগে গত ৩০ এপ্রিল আবুল খায়েরের অপকর্মের বিষয়ে স্কুলের এক শিক্ষার্থী প্রথম ফেসবুকে স্ট্যাটাস দিলে বিষয়টি জানাজানি হয়। পরে এলাকাবাসী আবুল খায়েরের বাসায় হানা দিয়ে তার মোবাইল ফোন ও ব্যক্তিগত ল্যাপটপ পরীক্ষা করে স্কুলের একাধিক ছাত্রীর ছবি ও আপত্তিকর ভিডিও উদ্ধার করে। এ সময় আবুল খায়েরকে মারধরও করে তারা। এলাকাবাসীর দাবি, আবুল খায়েরের লালসার শিকার হয়েছে স্কুলের বর্তমান এবং সাবেক বেশ কয়েকজন শিক্ষার্থী। ধারণা করা হচ্ছে, ছাত্রীদের প্রলোভন দেখিয়ে তিনি নিজের জালে ফাঁসাতেন এবং ধর্ষণ করে সেই ভিডিও ধারণ করে রাখতেন। এসব ভিডিও প্রকাশের ভয় দেখিয়ে মেয়েগুলোকে তিনি বারবার তার কাছে যেতে বাধ্য করতেন। কাশীপুর হাটখোলা উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মোঃ শামসুল হক বলেন, ‘আমরা আবুল খায়েরের বিরুদ্ধে অভিযোগের ব্যাপারে জানতে পেরেছি। বিষয়টি নিয়ে আবুল খায়েরের সঙ্গে কথা বলতে তার বাসায় গিয়ে তাকে পাওয়া যায়নি। এ ছাড়া মোবাইলফোনে যোগাযোগ করা হলেও সেটি বন্ধ পাওয়া যায়।  এ ব্যাপারে ফতুল্লা থানার ওসি মঞ্জুর কাদের বলেন, এখনও কেউ আমাদের কাছে এ-সংক্রান্ত কোনো অভিযোগ করেননি।