Thursday , 21 October 2021
গরমে হিটস্ট্রোক থেকে বাঁচতে…

গরমে হিটস্ট্রোক থেকে বাঁচতে…

লাইফস্টাইল ডেস্ক :
এই প্রচণ্ড গরম যখন আমাদের শরীর আর সহ্য করতে পারেনা, তখনই ঘটে নানা বিপত্তি। এর মধ্যে হিটস্ট্রোক একটি বড় সমস্যা। কিন্তু আমরা চাইলেই এই হিটস্ট্রোকের সমস্যা থেকে নিজেরাই মুক্তি পেতে পারি। এজন্য নিয়মিত পান করুন এই পানীয়গুলো:কাঁচা আমের শরবত-এখন এই মৌসুমে কাঁচা-পাকা দুই ধরনের আমই পাওয়া যায়। আপনি যদি হিটস্ট্রোক থেকে বাঁচতে চান তাহলে ঘরে বসেই বানিয়ে ফেলতে পারেন কাঁচা আমের শরবত। গরমে এই শরবত খুবই উপকারী। এতে করে শরীর ঠাণ্ডা করে, হিট স্ট্রোকের ঝুঁকি কমে অনেকখানি।

তেঁতুলের শরবত-তেঁতুলের টকমিষ্টি শরবত আমাদের সবারই পছন্দ। এই গরমে তেঁতুলের আমাদের সবার জন্য খুবই উপযোগী। এতে আছে ভিটামিন এবং ইলেক্ট্রোলাইট, যা আমাদের শরীর ঠাণ্ডা রাখে, পেটের বিভিন্ন সমস্যা কমায়।

মাঠা-আয়ুর্বেদীয় শাস্ত্রে মাঠার প্রচলন আছে। প্রতিদিন এক গ্লাস মাঠা খেলে শরীরের জন্য অনেক উপকার পাওয়া যায়। মাঠা প্রোবায়োটিক্সয়ের ভালো একটি উৎস এবং গরমের মধ্যে পানিস্বল্পতা দূর করে। তাই প্রতিদিন গরম থেকে বাঁচতে এবং হিটস্ট্রোক দূর করতে নিয়মিত মাঠা খেতে শুরু করে দিন।

ধনিয়া ও পুদিনার শরবত-ধনিয়া ও পুদিনার রস একসঙ্গে মিশিয়ে শরবত করে খেলে শরীর ঠাণ্ডা হয়। এই শরবত ‘ডিটক্সিফাইইয়িং’ বা শরীরের দূষিত পদার্থ বের করে দেয় খুব দ্রুত। বিশেষ করে খালি পেটে যদি এই পানীয়টি খান তাহলে শরীরে বেশি উপকার মিলবে।

অ্যালোভেরার শরবত-সারাদিন বাইরের রোদপোড়া থেকে বাঁচতে হলে অ্যালোভেরার শরবত খেতে পারেন। এই শরবত হজমে সাহায্য করে, বুক জ্বালাপোড়া কমিয়ে দেয় এবং পেটের নানা সমস্যা দূর করে। গরমে প্রতিদিন এক গ্লাস অ্যালোভেরার শরবত খান, হিট স্ট্রোকের ঝুঁকি কমবে। তবে বাইরের খোলা শরবত খাবেন না কখনো।

ডাবের পানি-গরম এবং রোগবালাইয়ে ডাবের পানি অত্যন্ত উপকারী, সেটা সবাই ই জানে। তাই হিটস্ট্রোক থেকে বাঁচতে হলে নিয়মিত এর গুণাগুণ সম্পর্কে প্রায় সবারই জানা। গরম থেকে মুক্তি পেতে ডাবের পানি পান করুন, সতেজতা অনুভব করবেন। দেখবেন তাৎক্ষণিকভাবে তৃষ্ণা মেটাবে, শরীরে দীর্ঘক্ষণ আর্দ্রতা বজায় থাকবে।

পেঁয়াজের রস-হিট স্ট্রোক থেকে বাঁচার অন্যতম ভালো উপায় হল পেঁয়াজের রস। অনেকেই পেঁয়াজের স্বাদ এবং গন্ধ পছন্দ করে না। তবে পেঁয়াজের রস ঔষধি গুণাগুণ সম্পন্ন হওয়ায় গরমে এর গুণাগুণ ভালো পাওয়া যায়।

হিট স্ট্রোক হলে করণীয়-যদি আপনার সামনে কেউ হিটস্ট্রোকে আক্রান্ত হয় তাহলে তাকে দ্রুত ঠাণ্ডাস্থানে নিয়ে যান। তারপর তাকে কাপড় খুলে দিন। শরীর পানিতে ভিজিয়ে দিন, তাকে বাতাস করুন। এবং সম্ভব হলে কাঁধ, বগল ও কুঁচকিতে বরফ দিন। আর যদি রোগীর জ্ঞান থাকে তবে তাকে খাবার স্যালাইন দিন। এরপর দেরি না করে দ্রুত হাসপাতালে নিয়ে যান।