Saturday , 10 December 2022

ঘরের ভেতরে বিস্ফোরণ, মা-ছেলে গুরুতর আহত |

চাঁপাইনবাবগঞ্জ শহরে ককটেল জাতীয় বস্তুর বিস্ফোরণে মা ও ছেলে গুরুতর আহত হয়েছেন। জেলা হাসপাতালে প্রাথমিক চিকিৎসার পর তাদের উন্নত চিকিৎসার জন্য রাজশাহী মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে স্থানান্তর করা হয়। শনিবার (২২ অক্টোবর) দিবাগত রাত পৌনে ৯টার দিকে উদয়ন মোড় সংলগ্ন উসকাঠিপাড়া (জিয়ানগর) মহল্লায় মৃত তফজুল হকের বাড়িতে ঘটনাটি ঘটে।  

এ ঘটনায় আহত হয়েছেন মা ফাহমিনা বেওয়া (৫৫) ও তার ছেলে মো.শহিদ (৪৪)।

বিজ্ঞাপন

আহত ফাহমিনা উসকাঠিপাড়ার তফজুল হকের দ্বিতীয় পক্ষের স্ত্রী ও শহিদ প্রথম পক্ষের ছেলে। বিস্ফোরণে দুজনের দেহের বিভিন্ন স্থানে জখমসহ ফাহমিনার ডান পায়ের হাঁটুর নিচে অনেকটা অংশ ঝলসে যায়। শহিদের বুকে ক্ষুদ্র ক্ষুদ্র একাধিক ছিদ্রের সৃষ্টি হয়েছে।

সদর থানার অফিসার (ইনচার্জ) একেএম আলমগীর জাহান বলেন, তফজুল হকের  সেমিপাকা (টিনের ছাদ) বাড়ির একটি ঘরে ককটেল জাতীয় বস্তুর আকস্মিক বিস্ফোরণ ঘটে। এতে ফাহমিনা ও তার সৎছেলে শহিদ আহত হন। অনেকটা পরিত্যক্ত ওই ঘর তফজুল হকের বড় ছেলে মো. বিটুলের। তবে তা শহিদ ব্যবহার করতেন। বিস্ফোরণটি বড় ধরনের হলেও ঘরের তেমন ক্ষতি হয়নি। ঘরে কমলা রংয়ের পাউডার জাতীয় পদার্থের অস্তিত্ব পাওয়া গেছে।  

ওসি আরও বলেন, শহিদ বিস্ফোরকসহ একাধিক মামলার আসামি। প্রাথমিক তদন্ত শেষে ওই ঘরে ককটেল জাতীয় বস্তু তৈরির সময় বা মজুদ ককটেলের বিস্ফোরণ ঘটেছে বলে ধারণা করা হচ্ছে। এ ঘটনায় আরো মানুষের সংশ্লিষ্টতা রয়েছে বলে সন্দেহ করা হচ্ছে। তবে গভীর রাত পর্যন্ত এ ঘটনায় কাউকে আটক করা হয়নি। ঘটনার বিস্তারিত তদন্ত শুরু হয়েছে।  

এ ব্যাপারে মামলাসহ প্রয়োজনীয় আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণের বিষয়টি প্রক্রিয়াধীন বলেও জানান ওসি।  


-Kalerkantho