নবীনগরে জনসম্মুখে কুপিয়ে হত্যা |

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার নবীনগরে পূর্ব শত্রুতার জেরে  জনসম্মুখে কুপিয়ে  মাসুদ (৪০) নামে  এক ব্যক্তিকে হত্যা করেছে দুর্বৃত্তরা । নিহত মোঃ মাসুদ মিয়া (৪০) উপজেলার রতনপুর ইউনিয়নের খাগাতুয়া গ্রামের  মঙ্গল মিয়া ছেলে। আজ  বৃহস্পতিবার খাগাতুয়া গ্রামের ভোরের বাজারে একটি চায়ের দোকানের সামনে প্রকাশ্যে এ খুনের ঘটনা ঘটে। 

স্থানীয়রা জানায়, আজ সকাল ৭ টার দিকে মাসুদ তার ভাগ্নিকে নিয়ে ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় ডাক্তার দেখানোর জন্য বাড়ি থেকে রওনা করে। যাওয়ার পথে  খাগাতুয়া ভোরের বাজারে চা খাওয়ার সময় দুর্বৃত্তরা সিএনজি করে ওই জায়গায় আসে। মাসুদকে দেখা মাত্রই  ধারালো অস্ত্র দিয়ে এলোপাতাড়ি কুপাতে শুরু করে। পরে তাকে সিএনজিতে করে খাগাতুয়া করবস্থানের কাছে নিয়ে দ্বিতীয় দফায় কুপিয়ে তার হাত ও পায়ের রগ কেটে গুরুতর আহত অবস্থায় রাস্তায় ফেলে যায়।  পরে স্থানীয়  ও পরিবারের লোকজন মাসুদকে উদ্ধার করে আশংকাজনক অবস্থায় নবীনগর সরকারি হাসপাতালে নিয়ে আসে। অবস্থার অবনতি হওয়ায় তাকে ঢাকায় প্রেরণ করা হয়। তবে পথিমধ্যে দুপুর ১ টার দিকে মাসুদ মারা যায়। মাসুদের মৃত্যুর খবর ছড়িয়ে পড়লে এলাকায় চরম উত্তেজনা দেখা দেয়।

পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে রাখতে রতনপুর ইউনিয়নে অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে। খুনের ঘটনাকে কেন্দ্র করে রতনপুর ইউনিয়নে চরম আতঙ্ক বিরাজ করছে। প্রত্যক্ষদর্শী নিহতের  ভাগ্নি শারমিন আক্তার জানান,  আমার চোখের সামনে সন্ত্রাসীরা নির্মম ভাবে আমার মামাকে কুপিয়ে হত্যা করেছে।

নবীনগর থানার ওসি (তদন্ত)  নূরে আলম জানান, পূর্ব শত্রুতার জেরে এ হত্যাকাণ্ডের ঘটনা ঘটেছে। এঘটনার সঙ্গে ইউনিয়ন পরিষদ  নির্বাচনের কোন সম্পর্ক নেই। তাদের একে অপরের বিরুদ্ধে একাধিক মামলা রয়েছে। লাশ  ঢাকা থেকে ফিরিয়ে আনা হচ্ছে। সুরতহাল প্রতিবেদনের পর পরবর্তী ব্যবস্থা  গ্রহণ করা হবে। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণের জন্য পর্যাপ্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।


-Kalerkantho

Leave a Reply